পঞ্চগড়ে জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক ও দুইজন টিসিএফ নাই কাজে মন্থরগতি কর্মকান্ডে সমন্বহীনতা প্রকট

পঞ্চগড়ে জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক ও দুইজন টিসিএফ নাই কাজে মন্থরগতি কর্মকান্ডে সমন্বহীনতা প্রকট

পঞ্চগড়ে জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক ও দুইজন টিসিএফ নাই কাজে মন্থরগতি কর্মকান্ডে সমন্বহীনতা প্রকট

     
 এএনবি পঞ্চগড় প্রতিনিধি ঃদেশের সর্ব উত্তরের জেলা পঞ্চগড়ের খাদ্য বিভাগে জনবল সংকটে স্থবির খাদ্য সংগ্রহ সহ দাপ্তরিক কাজ-কর্ম। ভারপ্রাপ্ত আর অতিরিক্ত দায়িত্বে চলছে জেলা খাদ্য বিভাগ। জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক এ জেলায় প্রায় বছর খানেক ধরে নেই। ভূতপূর্ব জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক স্বপন কুমার কন্ডু অন্যত্র চলে গেলে পদটি ফাঁকা হয়। অতিরিক্ত দায়িত্বে ছিলেন ঠাকুরগাঁয়ের জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো. বাবুল হোসেন। তিনিও সদ্য বদলি হয়েছেন জয়পুর হাটে। ফলে আরো বিড়ম্বনা দেখা দিয়েছে জেলা খাদ্য বিভাগে।
এর ফলে মহামারি করোনা পরিস্থিতিতে ত্রাণ সরবরাহ এবং জেলা পর্যায়ে মিটিং ও দূর্যোগপূর্ণ পরিস্থিতিতে জেলা প্রশাসন সহ স্থানিয় পর্যায়ে জনহিতকর কর্মকান্ডে সমন্বয়হীনতা তৈরি হয়েছে। জেলার পাচঁটি উপজেলায় ৮টি খাদ্য গুদাম প্রতি বছর খাদ্যশষ্য সংগ্রহে রয়েছে প্রচন্ড চাপ। এ জন্য জেলা উন্নয়ন সহ সব ধরনের সরকারের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট মিটিং গুলিতে তথ্য-উপাত্ত উপস্থাপনে এক ধরনের বিড়ম্বনা সৃষ্টি হয়। এমনকি এর জন্য বিভাগীয় মিটিং এ এমন বিড়ম্বনাও তৈরি হয় বলে বিভিন্ন সূত্র জানায়।
সদ্য বদলি হওয়া অতিরিক্ত দায়িত্বে থাকা বাবুল হোসেন জয়পুরহাটে বদলি হলে বর্তমানে ভারপ্রাপ্ত জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক হিসেবে আছেন পঞ্চগড় সদর উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো. জহুরুল হক।
এছাড়া র্দীঘ দিন ধরে পঞ্চগড়ের বোদা আটোয়ারি উপজেলায় উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক নেই। বোদা উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো. কামরুজ্জাামান দেবীগঞ্জ উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রকের অতিরিক্ত দায়িত্ব পালন করছেন। এদিকে আটোয়ারি উপজেলার খাদ্য নিয়ন্ত্রক অবসরে যাওয়ার পর এখন পর্যন্ত কাউকে সেখানে পদায়ন করা হয়নি। পঞ্চগড় সদর উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো. জহুরুল হক অটোয়ারি উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রকের অতিরিক্ত দায়িত্ব পালন করছেন।
এছাড়া জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক না থাকায় জেলা খাদ ও সদর খাদ্য নিয়ন্ত্রকের দপ্তর সহ অপর চার উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রকের দপ্তর গুলিতে কাজে নানা রকম উদাসীনতা দেখা দিয়েছে অনেকের মাঝে। কারন হিসেবে জেলা ও উপজেলা কর্মকর্তা না থাকায় সমন্বয়হীনতাকে দায়ি করছে অনেকেই। এ বিষয়ে কারো সুষ্পষ্ট বক্তব্য পাওয়া যায়নি।